অচেনা কেউ.. #পর্ব_১

বি এফ এর সাথে দেখা করতে যাওয়ার কথা..রেডি হচ্ছি..এমন সময় মোবাইলে একটা মেসেজ আসে...
.
'আজকে তোমার বিএফ ওর বন্ধুদের মিলে তোমাকে গণধর্ষণ করতে যাচ্ছে. তুমি সেখানে যেয়ো না।।আর গেলেও সেফটি নিয়ে যেয়ো..
ইতি..
অচেনা কেউ...
.
.
মেসেজটা পরে আমার মেজাজ ৩৬০° ঘুরে গেলো..
মানে কি হচ্ছে এসব..যেই নাম্বার থেকে মেসেজ আসছে সেই নাম্বার এ ফোন দিলাম..নাম্বার বন্ধ. মাথায় আসছে না যে করবো..
.
যদি কথাটা সত্যি হয় তখন??
৪বছরের রিলেশন আমার আর ফারহানের..কিন্তু এখন পর্যন্ত ওর ব্যবহারে এমন কিছু প্রকাশ পায় নি..
আজকে আমাকে ওরা গণ ধর্ষণ করতে যাবে৷

না এটা হতে পারে নাহ.

.
এদিক দিয়ে ফারহান ফোন দিয়ে খুব জলদি যেতে বলছে তার বন্ধু সিয়ামের ফ্ল্যাটে..
আজ নাকি ওর বন্ধু আরিয়ানের জন্মদিন..সবার গার্লফ্রেন্ড আসবে তাই আমাকেও যেতে বলছে..
.
আমি রাস্তায় বের হতেই কেনো যেনো যেতে ইচ্ছা হচ্ছে নাহ...
.
তবুও ফারহানের এমন চাপে যেতেই হবে..নাহলে ওর আবার সেই রাগ..
কি না কি করে ফেলবে জানা নেই..
.
তবুও আমি অহনা কে ফোন দেই..
.
অহনা আর আমি এক সাথে যাবো..
.
আমি অহনার জন্য অপেক্ষা করতেছি.আর ফারহান ফোনের উপর ফোন দিয়েই যাচ্ছে..
.
মানছে না কোন মতেই..
হয়তো বা বেশি জরুরি তাই এমন করছে ও..
যাই হোক আমি দাড়িয়ে আছি..
এমন সময় অহনা এসে ডাক দিলো..

ওর ডাকেই ভাবনার জগৎ থেকে ফিরলাম..
এবং ওর হাত ধরেই দুই জন যাচ্ছি সিয়াম দের বাসার দিকে৷

বাসার কাছে গেলাম..
তখন মনে হলো...আরিয়ান এতো বড়লোক বাবার ছেলে..ওর জন্মদিনের পার্টি কি এভাবে হবে??
মানে সিয়াম দের বাসায়??
তবুও আবার নিজেকে শান্তনা দিলাম যে হয়তো এইবার বন্ধুদের সাথে আলাদাভাবে করতেছে..
.
আমি সিড়ি দিয়ে উপরের দিকে উঠছি..
কিন্তু কোন আওয়াজ শোনা যাচ্ছে না..
আগের বারের কথা মনে আছে..
.
আরিয়ান এর জন্ম দিনের পার্টির জন্য আশ পাশে অনেক সাউন্ড বক্স লাগিয়েছিলো..আর অনেক দূর থেকে আওয়াজ শোনা যাচ্ছিলো..
.
হয়তো এইবার নিজের বাড়ি না তাই এমন করছে নাহ..শান্ত ভাবে করবে..
.
.
আমি দরজার সামনে দাড়িয়ে কলিং বেল দিলাম..
.
দরজা খুলতেই দেখি ফারহান দাড়িয়ে আছে..ভিতরে আর তিন বন্ধু. আরিয়ান নেই..
.
অথচ একটু আগেই ফারহান আমায় বললো কেক নিয়ে ওরা বসে আছে..
.
তাহলে কি ও??মিথ্যা বলছে আর অচেনা সেই মানুষটির কথাই সত্য??
.
কিন্তু এখন এসব ভাবার সময় নাহ..অনেক দেরি হয়ে গেছে..
.
আমায় চুপ থাকতে দেখে ফারহান আমাকে টান দিয়ে ভিতরে আনে..
অহনা রটাকে রোমান্স ভেবে নিজেও ভিতরে চলে আসে৷

ফারহান দরজা লাগিয়ে দিতেই ওর বন্ধুরা এগিয়ে আসে..
.
.
আর বলতে থাকে..
.
ভাই চাইছিলাম একটা.. পেয়ে গেলাম ২টা...
.
ওরা আমাকে আর অহনাকে ভাগাভাগি করতে শুরু করে..
.
কে কাকে নিবে.
.
আমার সমস্ত বিশ্বাস ভালোবাসা সব যেনো এক নিমেষে শেষ হয়ে গেলো..

আমি ফারহানের দিকে তাকালাম..সে তাচ্ছিল্যের হাসি দিয়ে বললো..
.
বন্ধুরা তোমায় খাইতে চাইছে.
আগে বন্ধু পরে সব..
.
.
আমি শক হয়ে গেলাম..
.
তারা হিংস্র হায়েনার মতো আমার আর অহনার দিকে এগিয়ে আসছে..
.
অহনা কেদে শেষ কিন্তু আমি তো এখন ও শক.রিয়েকশন কি দিবো??।
.
.
একজন অহনা কে নিয়ে রুমে ধুকে গেছে আরেক জন আমায় কুলে তুলে খাটে ছুড়ে ফেললো..
.
মাথায় আঘাত লাগলো..কিন্তু ব্যাথা পাই নি।।কারণ এর থেকে বড় আঘাত মনে লাগছে৷


এখন মনে হচ্ছে যদি অচেনা সেই মানুষটার কথা শুনতাম তাহলে হয়তো আজ বেচে যাই আমি বেচে যায় আমার বন্ধুটা...
.
.
অচেনা কেউ.. #পর্ব_১
অচেনা কেউ..পর্ব_১

.
এখন একটাই দোয়া মন থেকে আসছে..ইশ যদি সেই মানুষটা আমায় বাচাতে আসতো...
.
.
.
.
চলবে.
.
.
অচেনা কেউ..
পর্ব_১
লেখক_আয়াত_মুস্তারিহ_আয়ান
পোস্ট রেটিং করুন
ট্যাগঃ ,
About Author

টিউটোরিয়ালটি কেমন লেগেছে মন্তব্য করুন!